আসাদজামানের দু’টি কবিতা

0
566
asadjaman, natore

বৃথা চেষ্টা
————
আসাদজামানের প্রেমের কবিতা

ভেবেছিনু একা-একা পৌঁছবো গন্তব্যে, স্বপ্নবাড়ি,
তোমাকে এড়িয়ে চলতে এই মন এখনও আনাড়ি।
তারপর আর কখনও বাড়ানো হয়নি পা,
মনকে বলেছি —
ছুটোছুটি করিসনে, এখানেই থেকে যা!

ডিঙি ভাসিয়ে লাভ নেই, নদীর ভরাট জলে
হাসতে হাসতে কথা, বলেছিনু কথার ছলে ।
সেই থেকে সেও আর কোথাও করেনি নোঙর,
বললো আমিও তোমাতে আছি এখনো,পূর্বাপর।

হৃদয়ই ভালোবাসার একমাত্র আবাদকৃত ভূঁই
যেখানে আমরা—
খুনসুটি, অভিমান, ভালোবাসা জমা থুই।
কারো ভালোবাসা হাসিতে , কারোবা চোখের জলে
ভালোবাসি এই কথা, কেউকেউ মুখ ফুটে বলে।

সেই যে বৃথা চেষ্টা, তারপর আর এগুনো হয়নি
না আমি তাকে, না সে আমাকে
কখনও ছেড়ে যাইনি।

ধুলোমাখা এই জল
——————#আসাদজামান

বাঁচতে হলে জানতে হবে সে বড় পুরোনো কথা,
শুনেছি বহুবার নূতন আদলে।
বলছে অনেকেই, মানেনা; নিজের মত। ধুলোবালি
জমা হলে ঘোলাটে হচ্ছে স্বচ্ছ কাঁচ। নিদারুণ
কষ্টে ধুলোরা আঁকড়ে ধরে ভালোবাসা বারোমাস।

কাকে দেয়া কথা কে নেবে ফিরিয়ে!
সমস্ত খাঁ খাঁ দুপুর জুড়ে অপেক্ষা।
আসন্ন গোধূলি বেলায় ফিরে যায় পাখি,
মাঝিও খুঁজতে থাকে জলের কিনার।

পাপবোধ থাকেনা সবার। ভরাট জলে হাত-পা
কেলিয়ে ভাসতে পারে কেউ;
জলকে অভয়ারণ্য মনে করে কাটেনা সাঁতার।

খোয়া গেলে একবার চেতনার চৈতন্য ; কে রুখে
তারে!
দাঁড়কাক দূর হতে চেয়ে দেখে পাগলামি
লজ্জার ভঙ্গিতে —
মানুষ অমন কেন?

অবশেষে কেউই থাকেনি—
কেবল আমিই বেঁচে থাকি সাথে নিয়ে কতিপয় ভুল।

১৯.১২.২০১৯

Advertisement
পূর্ববর্তী নিবন্ধসুমন দত্ত’র দু’টি কবিতা
পরবর্তী নিবন্ধসুবীর সরকারের একগুচ্ছ কবিতা

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে