“কবিকে”-দেবাশীষ সরকারের কবিতা

0
276
Debashish Sarker

কবিকে-দেবাশীষ সরকার

তোমার ফোনটা পেয়েই ঘুম ভেঙ্গে যায় আমার, কিন্তু রোমাঞ্চকর, রহস্যময়ী অপরূপা রূপালী তন্দ্রা র্নিলিপ্তভাবে আমায় জড়িয়ে রাখে। খোলা জানালা পেয়ে জোর করে এসে সকালের একফালি তাজা রোদ আমার পা ধুয়ে দেয় অবিরত, মৃদু হাওয়ায় কাঁঠাল পাতারা দোল খায়, বাতাসে লেগে থাকে শেফালি ফুলের গন্ধ, দূর থেকে ভেসে আসতে থাকে উচ্চস্বরে চন্ডি পাঠের একটানা শিহরণ। ফোনটা পাবার পরও হারিয়ে যাই কাশফুলে ছেয়ে থাকা মেঠোপথ ধরে নদীর কিনার, নলখাগড়ার বন পার হয়ে কষ্টের নীল প্রান্তরে।

হে প্রিয় সংবাদ পাঠিকা তোমার করুন মুখোচ্ছবি বার বার জানতে চায় দূর্ঘটনার শেষ পরিস্থিতি এখন কিতবু সুখের তন্দ্রা আমার কাটে না। অসহ্য যন্ত্রনার বিষ ঢেলে লাব্যনহীন আবেগে তবু শৈল্পিক ছোঁয়ায় সাজাই শুদ্ধ স্বপ্নের হাসি, কান্না, দুঃখ, আনন্দ আর আমার বিদীর্ন বুকের রক্তাক্ত প্রতিক্ষিত ভালোবাসা ………..

 

Advertisement
পূর্ববর্তী নিবন্ধ“অপেরা হাউজ”- সুবীর সরকারের কবিতা
পরবর্তী নিবন্ধ“একটু ছুঁয়ে দাও, কিছুটা ছুঁয়ে দেই”-নাজমুল হাসানের কবিতা

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে