নাটোরকে করোনা মুক্ত রাখতে জেলা সিমান্তে পুলিশ ওয়াচ টাওয়ার স্থাপন

0
1420
POLICE

সন্দীপ কুমার গুরুদাসপুর: নাটোরে করোনা সংক্রামন রোধে জেলার অন্যতম প্রবেশদ্বার গুরুদাসপুরের কাছিকাটার টোলপ্লাজার পাশে পুলিশ চেকপোষ্ট ও ওয়াচ টাওয়ার উদ্বোধন হয়েছে। আজ সোমবার দুপুরে গুরুদাসপুর উপজেলার মশিন্দা ইউনিয়নের কাছিকাটা টোলপ্লাজা সংলগ্ন এলাকায় ফিতা কেটে পুলিশ চেকপোষ্ট ও ওয়াচ টাওয়ার-১ উদ্বোধন করেন জেলা পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা।

উদ্বোধনী অনুষ্টানে লিটন কুমার সাহা জানান,করোনা ভাইরাস সংক্রমণ বিস্তার রোধে কোন ব্যক্তি যেন ঢাকা, নারায়ণগঞ্জ, গাজীপুর কিংবা সংক্রামিত অন্য জেলা হতে নাটোর জেলায় প্রবেশ করতে না পারে এবং পণ্যবাহী ট্রাক পন্য পরিবহনের আড়ালে কোন ব্যক্তিকে নিয়ে যেন নাটোর জেলায় প্রবেশ করতে না পারে জেলা পুলিশ সেটা কঠোরভাবে তদারকি করছে। নাটোর জেলা পুলিশ কঠোর অবস্থানে থেকে পুলিশী চেকপোস্ট কার্যক্রম পরিচালনা করছে। একজন অফিসারের নেতৃত্বে একদল পুলিশ সার্বক্ষনিক পালাক্রমে চেকপোষ্টে দায়িত্ব পালন করবেন। টোলপ্লাজায় স্থাপিত চেকপোষ্ট ও ওয়াচ টাওয়ারের মাধ্যমে কেউ লুকিয়ে আক্রান্ত জেলা থেকে নাটোরে প্রবেশ করলেও তাকে ফিরিয়ে দেয়া হবে। নাটোরকে করোনা মুক্ত রাখতে সকলের সহযোগীতাও চান তিনি।

এসময় অন্যন্যদের মধ্যে -,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আকরাম হোসেন,  মীর আসাদুজ্জামান, হারুর অর রশীদ, সহকারী পুলিশ সুপার মোঃ জামিল আকতার, গুরুদাসপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি)মোজাহারুল ইসলাম প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

তারা জানান, হুহু করে বাড়ছে করোনায় আক্রান্ত ব্যাক্তি ও মৃত্যুর সংখ্যা। করোনা ভাইরাসের থাবায় বিপর্যস্ত দেশের এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্ত। এপর্যন্ত দেশের ৬৪ টি জেলা আক্রান্ত হলেও নাটোর করোনামুক্ত জেলার অন্যতম। নাটোরকে করোনামুক্ত রাখতে জনগনের সহায়তা চেয়ে তারা বলেন, ঘরে থাকুন,সুস্থ্য থাকুন,মুখে মাস্ক ব্যবহার করুন,সামাজিক দুরত্ব বজায় রাখুন।

গুরুদাসপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি)মোজাহারুল ইসলাম বলেন,উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনানুসারে গুরুদাসপুর থানা পুলিশ প্রাণঘাতি করোনাভাইরাস মোকাবেলা ও গুরুদাসপুরকে করোনামুক্ত রাখতে সরকার নির্দেশিত সকল কার্যক্রম পরিচালনা করছে। সামাজিক দুরুত্ব নিশ্চিত করন,ঘরে থাকতে উৎসাহিত করা,খাদ্যহীনে খাবার পৌছে দেয়া,প্রবাসী ও ঢাকা,নারায়নগঞ্জ বিশেষ করে করোনা আক্রান্ত জেলাগুলো থেকে ইতিপুর্বে আগতদের হোম কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিত করন,হাট-বাজার বন্ধ, অপ্রয়োজনে বাইরে ঘোরাঘুরি বন্ধ,সন্ধ্যা ৬ টার মধ্যে যার যার ঘরে অবস্থান,জনসমাগম এড়িয়ে চলতে জনগনকে উৎসাহ দিতে গুরুদাসপুর থানা কাজ করছে।

Advertisement
পূর্ববর্তী নিবন্ধবাগাতিপাড়ায় ২ দোকানে ভ্রাম্যমাণ আদালতের জরিমানা
পরবর্তী নিবন্ধলকডাউন – ছিন্ন ভাবনা ৫-ফাল্গুণী মুখোপাধ্যায়

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে