পর্দা প্রথা : দীপ্তি জামান

0
153
Dipty Jaman

দীপ্তি জামান : মানুষের আদিম মানসে ছিল বিচিত্র ধরনের ভয়/আশঙ্কা ৷ তাই প্রতি পদক্ষেপে তারা সাবধানতা অবলম্বন করার চেষ্টা করত৷ মানবসমাজে এখনো অনেক ভয়ের অস্তিত্ব রয়েগেছে৷ এখনো মানুষ প্রকৃতি এবং মহাবিশ্বের প্রচুর রহস্যের পর্দা উম্মোচন করতে পারেনি ৷

সুতরাং সহজেই আন্দাজ করা যায় আগের যুগের মানুষগুলো আরো কতটা ভীতির মধ্যে বাস করত ৷যেমন পাতলা কাপড় দিয়ে দুচোখ (বাদে) মুখমণ্ডল ঢাকার প্রচলন হয় এই ভয় থেকেই নাকি৷ আগের যুগের মানুষ মনে করত, মুখমণ্ডল ঢেকে রাখা না হলে নাক মুখ দিয়ে অশুভ বা খারাপ আত্মা শরীরে ঢুকে পড়তে পারে ৷

রাজা বা সম্ভ্রান্ত পুরুষরাও মসলিন কাপড় দিয়ে মুখ ঢেকে রাখত৷ কোনো কোনো রাজা বা শাসকতো কোনো আগন্তুকের সামনে না এসে পর্দার আড়ালে বসে সক্ষাৎ গ্রহণ করতেন৷ মুখ ঢাকা এবং নেকাপ ব্যবহারের প্রচলন প্রায় সারা পৃথিবী জুড়েই ছিল৷ এর সাথে বিশেষ কোনো ধর্মের সংযোগ ছিল না ৷

ইসলাম ধর্মে হয়তো এই ঐতিহ্য থেকেই পর্দা প্রথার প্রচলন করেছে ! ইসলামপূর্ব সময় থেকে আরব অঞ্চলের মানুষ প্রার্থনার সময় মাথা ও ঘাড় আবৃত রাখত যাতে করে কোনো অশুভ শক্তি মাথা ও ঘাড়ে ভর করতে না পারে৷ পানি দিয়ে আগে হাত পা মুখমণ্ডল ধৌত করে নেয়া হতো, কারণ তাতে নাকি অশুভ আত্মা পানির সঙ্গে শীরর থেকে বের হয়ে যেত ৷

Advertisement
উৎসDipty Jaman
পূর্ববর্তী নিবন্ধনাটোরের বাগাতিপাড়ায় দলিল লেখক সমিতি দখল নিয়ে অস্ত্রের মহড়া
পরবর্তী নিবন্ধনাটোরের গুরুদাসপুরে নববধুর পায়ুপথে সঙ্গম করায় স্বামী গ্রেফতার

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে