“বৃষ্টিমঙ্গল”- এম আসলাম লিটনের কবিতা

0
527
লিটন

বৃষ্টিমঙ্গল
এম আসলাম লিটন
.
পৌষের রাতে লিখি বরষার গান
চাদরের ভাঁজে ভাঁজে বরিষুধারার সুরে
প্রকৃতিরা নেচে ওঠে রিমঝিম তালে
আনন্দজালে মেতে ওঠে প্রাণ; মন আনচান।

শীতের কুয়াশারা হয়ে যায় আষাঢ়ের মেঘ
শিশিরের কণাগুলো বৃষ্টির ধারা হয়ে
ঝরঝর ঝরে পড়ে গাছের শাখে, পাতায় পাতায়
প্রকৃতিই খেলতে পারে এই অদ্ভুত খেলা।

প্রকৃতির ভাঁড়ার বৃষ্টিই ভরে দিতে পারে
সে বরষায় হোক, বা হোক না সে শীতে
বৃষ্টিই ধুয়ে দিতে পারে যত পাপ, মনের ধুলো
বৃষ্টিই ভেজাতে পারে তৃষিত জমিন,
শুষ্ক ফসলের ক্ষেত মেতে ওঠে সরস লীলায়।

তাই তো কায়মনে লিখে যাই বৃষ্টির গান
হোক না সে শীতে, ঘন বরষায়; কিংবা খরায়
কীবা আসে যায়!

Advertisement
পূর্ববর্তী নিবন্ধমনির জামানের তিনটি কবিতা
পরবর্তী নিবন্ধ”হর্ষে হর্ষে” – ভাস্কর বাগচী‘র কবিতা

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে